‘ মনখারাপ '

‘ মনখারাপ ‘

গল্প : 😔  ” মনখারাপ ” 😔
                ★★★★ ★★★
কলমে : তিলোত্তমা 🍂💞 মিমি 💞🍂

  মন খারাপ , মারাত্মক রকম খারাপ । একেবারে করুন পরিণতি যাকে বলে । হুটহাট করেই  হয়ে যায় মন খারাপ । ক্ষণে ক্ষণে বিষণ্ণতা  ঘিরে ধরে । মন খারাপের কারণ জানি না  । বুঝতে পারি না মন খারাপের আমাকেই কেনো এত পছন্দ করে ???  কারণে অকারণে চলে আসে  আমার কাছে । মাথাটা  ফেটে যাচ্ছে  যন্ত্রণায় জানেন ?  আচ্ছা মনেরও কি মন আছে ?  ইশ জানতে পারলে ভালো হতো । তাহলে তার ঠিকানা জোগাড় করে পৌঁছে যেতাম মনেরও মনের কাছে । গিয়ে বলতাম ” আমার  বেয়াদব চঞ্চল মন টাকে তোমার কাছে  আটকে রাখো কেনো বাপু, খুব বিরক্ত করছে আমায় । যখন তখন বিষণ্ণতা কে ডেকে আনছে তার কাছে। আমার আর ভালো লাগছে না এসব । ”
      আমার মন খারাপের ওষুধ আছে একজনের কাছে কিন্তু এখন সে আমার কাছে নেই । থাকলেও আমার মনখারাপের ওষুধ সে  দেবে না । খুব বেইমান সে । আমায় গুমরে গুমরে কষ্ট পেতে দেখতে সে খুব ভালোবাসে । যদি সম্ভব হতো তাহলে বোধয় জ্বলন্ত মনটাই কেরোসিন ঢেলে আরো দাউ দাউ করে  জ্বালাতো । আমায় কষ্ট পেতে দেখলে সে যেনো পৈশাচিক আনন্দ পায় ।  কিন্তু অদ্ভুত ভাবে তার কাছে ছাড়া আর কারোর কাছে আমার মন খারাপের ওষুধ নেই । থাকলে তাকে তোয়াক্কা করতাম নাকি?
        কি নিষ্ঠুর মানুষ সে তাই না ? আমার জীবনের ইতিহাসে তো  সব থেকে নিষ্ঠুর  । কতবার ছুটে গেছি তার কাছে , বেশি না শুধুমাত্র একটা আর্জি নিয়ে  ” আমায় তোমার বুকে একটু মাথা রাখতে দেবে প্লিজ ?” এই কথাতে তার যেনো কতো আপত্তি , কতো বিরক্তি । বলে কিনা ” সেই যোগ্যতা এখনও তুই অর্জন করিসনি । আগে সে যোগ্যতা অর্জন করে আয় তারপর অধিকার চাইতে আসবি ” । আমি আকাশ পাতাল ভেবে কোনো কুল কিনারা পায়নি ঠিক কি যোগ্যতা অর্জন করলে সে আমায় তার বুকে একটিবার মাথা রাখতে দেবে । তাকেও জিজ্ঞেস করেছি অনেকবার ,  বলেনি সে । নাক উঁচু করে গম্ভীর ভাবে বলেছে ” বলবো কেনো ? আমি বলে দিলে তো হয়েই গেলো । নিজেই  ভাব ” । নিরাশ হয়ে আমার একলা ক্লান্ত মনটাকে টানতে টানতে নিয়ে আসি ঘরে। দরজায় খিল দিয়ে বারবার মনটাকেও  জিজ্ঞেস করেছি ” তুই জানিস কি যোগ্যতা থাকা দরকার ?” উমহু তার কাছ থেকেও কোনো উত্তর পায়নি । চোখ দিয়ে জলটাও বের হয় না আর , শুকিয়ে গেছে সব । জলশুণ্য মাটি যেমন খড়খড়ে হয় ঠিক সেরকম আমার চোখের চামড়াটা খড়খড়ে হয়ে গেছে জলের  অভাবে । মাঝে মাঝে ভীষণ কড়কড় করে চোখ দুটো , খুব কষ্ট হয় তখন । কিন্তু কি আর করবো ? সে তো আর বুঝতে চাই না তাই আমিও আর আকবারিয়ে বোঝাতে যায় না। আমায় ভেঙে চুরে একাকার করে দিয়েছে সে । এখন আমার যন্ত্রনাটাও খুব ক্লান্ত পরিশ্রান্ত । আমাকে খুব করে অনুরোধ করছে তাকে একটু ছাড় দিতে ,  সে একটুখানি  জিরিয়ে নিতে চাই সে  । কিন্তু আমার হাতে কি তা আছে ? সবই তো তার হাতে । হয়তো তার মতো করে এখনও তাকে ভালোবাসতে পারিনি বা কম পড়েছে আমার ভালোবাসা আর সেকারণেই  যোগ্য হয়ে  উঠতে পারিনি এখনও তার ।
       আচ্ছা কেউ কি বলতে পারবে ? ভালোবাসা কিভাবে পরিমাপ করা যায় ? তার একক কি ? না মানে আমি এগুলো কিছুই জানি না । শুধু জানি আমি তাকে খুব ভালোবাসি ব্যাস এইটুকুই । যদি জানতাম কিভাবে পরিমাপ করা হয় ভালোবাসা তাহলে আমি একবার পরিমাপ করতাম । বুঝতে পারতাম কতটা কম পড়েছে আমার ভালোবাসায় ? কিন্তু আমার কাছে যে আর কিছুই নেই যা দিয়ে আমি আমার ভালোবাসা বাড়াবো । এ কি মহা সমস্যায় পড়লাম আমি । আমার সব শান্তি কেবলমাত্র তার বুকেই আছে কিন্তু সেই শান্তির জায়গাটা  পাবো কোন উপায়ে ? তার এই বর্বরতা , নিষ্ঠুরতা যে আর সহ্য হচ্ছে না ।
      আমি একটু সময় কিনতে চাই । নাহ্ মূল্য কিছু দিতে পারবো না । তার জন্য আমি আজ একেবারেই নিঃস্ব তাই ধারেই কিনবো । উদ্দেশ্য এই অসহ্যকর সময়টা থেকে একটু বিরতি নিয়ে আমার দুঃখ , কষ্ট , যন্ত্রণা , নিরাশা , হতাশা  গুলোকে একটু বিশ্রাম দিতে চাই । আমার জন্য তারা আর কত ক্লান্ত হবে ? তিলে তিলে শেষ নাহয় সে আমাকে আর আমার বিধ্বস্ত মনটাকেই করুক ।

                                        ___________________তিলোত্তমা 🖤

গল্পটি আপনার কেমন লাগলো রেটিং দিয়ে জানাবেন
[Total: 1   Average: 5/5]
বন্ধুদের সঙ্গে "Share" করুন।
close